শ্রমজীবিদের মধ্যে রোটারির হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ

রাজধানীর শ্রমজীবি মানুষের মধ্যে বিনামূল্যে হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ শুরু করেছে রোটারি ইন্টারন্যাশনাল। এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন রোটারী গভর্ণর এম খায়রুল আলম। রোটারির পক্ষ থেকে প্রাথমিকভাবে ৩০ হাজার হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ ও সচেতনামূলক ক্যাম্পেইন পরিচালনা করা হচ্ছে।

সাভারের গণবিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগিতায় রোটারির প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে বিনামূল্যে বিতরণের জন্য এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার রাব প্রস্তুত করা হচ্ছে। পঞ্চাশটি রোটারি ক্লাবের সমন্বয়ে উৎপাদিত এই হ্যান্ডরাব স্যানিটাইজার বিতরণের দায়িত্বে আছে রোটারির তরুণদের অঙ্গসংগঠন রোটার‌্যাক্ট ক্লাব।

এম খায়রুল আলম বলেন, শ্রমজীবি মানুষদেরকে জীবিকা নির্বাহের জন্য প্রতিদিন ঘরের বাইরে থাকতে হচ্ছে। প্রতিদিন কাজে না বের হলে তাদের পক্ষে পরিবারের খাবার যোগান দেয়া অসম্ভব। কিন্তু ঢাকা শহরে পর্যাপ্ত হাত ধোয়ার জন্য পাবলিক প্লেস না থাকায় এই শ্রমজীবি মানুষেরা করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার চরম ঝুঁকিতে আছেন। সেক্ষেত্রে হ্যান্ড স্যানিটাইজার দিয়ে বারবার হাত পরিস্কার করা ছাড়া তাদের উপায় নেই। আর্থিক কারনে ও সচেনতার অভাবে তাদের শ্রমজীবি মানুষদের পক্ষে সেগুলো ব্যবহারের সুযোগ সীমিত।

হ্যান্ড স্যানিটাইজার রাব বিতরণকালে স্বেচ্ছাসেবীদেরকে সম্পূর্ণ স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে এবং ভিড় এড়িয়ে ‘ওয়ান টু ওয়ান’ বিতরণের জন্য অনলাইনে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে। আগামীতে শ্রমজীবি মানুষদের মধ্যে খাদ্যপণ্য বিতরণেরও আরেকটি কর্মসূচি পরিকল্পনা করা হচ্ছে বলে গভর্ণর জানান।

বাংলাদেশে এ ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে গত ৮ মার্চ। এর পর থেকে এ ভাইরাসে সংক্রমণের সংখ্যা বেড়েছে।

গত বছরের ৩১ ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের উহানে প্রথম শনাক্ত হওয়া করোনাভাইরাস এখন বৈশ্বিক মহামারী। ইতোমধ্যে ভাইরাসটি বিশ্বের ১৯৪টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে। সংক্রমিত হয়েছেন তিন লাখ ৭৭ হাজার। আর মৃত্যু হয়েছে সাড়ে ১৬ হাজারের বেশি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *