ঘুরে দাঁড়াচ্ছে ফ্রান্স ও ইটালি, সঙ্কটে ব্রাজ়িল

৩ জুন থেকে ইটালিও দেশের মধ্যে বা পড়শি দেশে সফরে কড়াকড়ি কমাবে। করোনায় তিন লাখেরও বেশি মানুষের মৃত্যুর পরে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টায় গোটা বিশ্ব।

ক্রমশ ঘর ছেড়ে বেরোচ্ছে ইউরোপ। বহু দিন পর  ফ্রান্সের বেশ কিছু সমুদ্র সৈকতে পা পড়েছে মানুষের। ব্রিটেন সরকার অবশ্য দেশবাসীকে অনুরোধ করেছে, খুব বেশি ঘুরতে-বেড়াতে না-যেতে। দু’মাস পরে জার্মানিতে ফুটবল সিজ়ন। জানানো হয়েছে, ছ’টি ম্যাচ রুদ্ধদ্বার হবে। ৩ জুন থেকে ইটালিও দেশের মধ্যে বা পড়শি দেশে সফরে কড়াকড়ি কমাবে। করোনায় তিন লাখেরও বেশি মানুষের মৃত্যুর পরে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টায় গোটা বিশ্ব।

এর মধ্যেই ব্রিটেনে আজ নতুন করে সংক্রমিত সাড়ে তিন হাজার জন। ২৪ ঘণ্টায় মৃত দু’শোর বেশি। মৃত্যু-সংখ্যায় এখন আমেরিকার পরেই ব্রিটেন, ৩৪,৪৬৬। আমেরিকায় মৃতের সংখ্যা ৮৯ হাজারের কাছাকাছি। সবার আগে দরজা খুলেছিল স্পেন। লকডাউন শিথিল করেছিল অনেকটাই। কিন্তু স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেড্রো স্যাঞ্চেজ় আজ জানান, তিনি পার্লামেন্টে কথা বলে দেখবেন, যদি লকডাউন আর এক মাস বাড়ানো যায়। কিন্তু লকডাউন তুলে দেওয়ার জন্য বিক্ষোভ চলছেই। সেভিলে সরকার-বিরোধী বিক্ষোভ দেখানোর জন্য ১০০ জন গ্রেফতার হয়েছেন।

লকডাউনের বিরোধিতা করে বিক্ষোভ চলছে জার্মানিতেও। ইউরোপের দেশগুলোর মধ্যে জার্মানিতে করোনা সংক্রমণে মৃত্যু সব চেয়ে কম। বেশ কিছু এলাকায় তাই লকডাউন শিথিল করে দেওয়া হয়েছে। কিন্তু জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল কিছু কড়াকড়ি বজায় রেখেছেন। তাতে চটেছে দেশবাসীর একাংশ। গত দু’সপ্তাহ ধরে, শনি-রবি রাস্তায় নেমে সরকার-বিরোধী বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন লোকজন। বিক্ষোভকারীরা পারস্পরিক দূরত্ববিধিও মানছেন না। মাস্ক পরতে দেখা যায়নি অনেককেই। হাঙ্গেরিতেও ধীরে ধীরে লকডাউন তুলে দেওয়া হচ্ছে। সোমবার থেকে স্বাভাবিক জীবনে ফিরবে বুদাপেস্ট। তার দু’সপ্তাহ পরে গোটা দেশেই তুলে দেওয়া হবে লকডাউন।

সৌদি আরবে আবার নতুন করে সংক্রমণের ঝড়। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ২৮৪০ জন। এর জেরে মোট সংক্রমণের সংখ্যা ৫০ হাজার ছাড়াল। রাশিয়ার পরিস্থিতি একই। এক দিনে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ৯২০০ জন। মোট আক্রান্ত প্রায় তিন লক্ষ।

-আনন্দবাজার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *