অভাবে আত্মহত্যা করেন টেলি অভিনেতা মনমিত

করোনায় তালা ঝুলছে স্টুডিয়ো পাড়ায়। শুটিং বন্ধ হয়েছে প্রায় দু’মাস। ঘরে চরম অভাব। বন্ধুদের থেকে ধারবাকি করেও সংসার চলছিল না আর। এমন অবস্থায় মানসিক অবসাদের শিকার হয়ে আত্মহত্যা করলেন হিন্দি টেলি সিরিয়ালের চেনা মুখ মনমিত গ্রেওয়াল।

শুক্রবার গভীর রাতে নবী মুম্বইয়ের বাসভবনে স্ত্রীর ওড়না দিয়ে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন মনমিত। তাঁর বয়স হয়েছিল ৩২ বছর। সংবাদসংস্থা পিটিআই সূত্রে জানা গিয়েছে, মনমীতের স্ত্রী-ই প্রথম তাঁকে সিলিং ফ্যান থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পান। কান্নায় ভেঙে পড়ে প্রতিবেশীদের সাহায্য চাইলেও কেউ এগিয়ে আসেননি। সবাই ভেবেছিলেন করোনায় সংক্রমিত হয়ে মানসিক ভাবে ভেঙে পড়ে আত্মহত্যা করেছেন তিনি। অভিনেতা যে আবাসনে থাকতেন শেষমেশ সেই আবাসনেরই নিরাপত্তারক্ষাকর্মী এগিয়ে এসে ওড়নার ফাঁস কেটে মনমিতের নিথর দেহ নামিয়ে আনেন।

অভিনেতার ঘনিষ্ঠ বন্ধু সংবাদমাধ্যমকে বলেন, “চরম অর্থকষ্টের মধ্য দিয়ে যাচ্ছিল ও। চারিদিকে দেনা হয়ে গিয়েছিল। শোধ করারও কোনও অবস্থা ছিল না। এই ‘নো ওয়ার্ক ফেজ’-এ থাকতে থাকতে ক্রমশ চরম অবসাদের মধ্যে ডুবে যাচ্ছিল ও। গোটা ঘটনায় তাঁর স্ত্রীও ভেঙে পড়েছে।”

কমেডি ধারাবাহিক ‘আদাত সে মজবুর’, এবং ‘কুলদীপক’- সহ বেশ কিছু ধারাবাহিকে কাজ করেছিলেন মনমিত। এ ছাড়াও কাজ করেছেন বেশ কিছু ওয়েব সিরিজেও।

মনমিতের মতো অবস্থায় বর্তমানে দিন কাটাচ্ছেন বহু অভিনেতা, টেকনিশিয়ানরা। শুটিং বন্ধ হবার পর কার্যত বেকার তাঁরা। বলিউডের পাশাপাশি একই চিত্র টলিউডেও। এরই মধ্যে কিছু দিন আগেই টলিউডে একটি চ্যানেল বিনা নোটিসে চারটি ধারাবাহিক বন্ধ করে দিয়েছে। অভিনেতা-টেকনিশিয়ানদের মুখে চিন্তার ছাপ। কবে থেকে শুটিং শুরু হবে কারও জানা নেই। আশঙ্কা, ভয় এবং একরাশ দুশ্চিন্তায় দিন কাটাচ্ছে সিনে মহল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *